পুজোর আগে বাড়তি মেদ ঝড়িয়ে হয়ে উঠুন নজরকাড়া

Lorem ipsum dolor sit amet, consectetur adipiscing elit. Ut elit tellus, luctus nec ullamcorper mattis, pulvinar dapibus leo.

মেরেকেটে আর তিন সপ্তাহ বাকি‚ তার পরেই বাঙালির সেরা উৎসব দুর্গাপুজো আরম্ভ হয়ে যাবে| গত কয়েকমাসে যদি কয়েক কেজি ওজন বেড়ে থাকে তাহলে এটাই আদর্শ সময় তা ঝড়িয়ে ফেলার| তবে প্রথমেই একটা কথা মাথায় রাখতে হবে আপনি যদি ভেবে থাকেন তিন সপ্তাহে এক লাফে ১০ কেজি ওজন কমিয়ে ফেলবেন তা কিন্তু সম্ভব নয়| এবং সেটা শরীরের পক্ষেও ক্ষতিকর| তবে কিছু নিয়ম মেনে তললে তিন সপ্তাহে আপনি ২-৩ কেজি সহজেই কমিয়ে ফেলতে পারবেন|

এক জন সাধারণ মহিলার দিনে ২০০০ ক্যালরির দরকার এবং এক সপ্তাহে ১ কিলো ওজন কমাতে তা ১২০০ ক্যালরিতে নামিয়ে আনতে হবে। এক জন সাধারণ পুরুষের দিনে ২৫০০ ক্যালরির দরকার যা ১৭০০ ক্যালরির আসে পাশে নামিয়ে আনতে হবে এক সপ্তাহে ১ কিলো ওজন কমাতে।

খাওয়া কমিয়ে দেওয়া বা বন্ধ করে দিলে হিতে বিপরীত হবে। ওজন কমানোটা ৭০% খাওয়া এবং ৩০% ব্যায়ামের উপর নির্ভর।প্রোটিন জাতীয় খাবার বেশি করে খান। যেমন মাছ, মাংস, ডাল ইত্যাদি বেশি করে খান। প্রোটিন খুব একটা সহজ পাচ্য নয় তাই প্রোটিন হজম করতে শরীরকে বেশি ক্যালরি ব্যয় করতে হয়ে।

কার্বোহাইড্রেট খাওয়া কমিয়ে দিতে হবে। ভাত, রুটি, পাউরুটি, এগুলো খাওয়া বন্ধ করে দিন। ভাতের বদলে ওটস, দালিয়া এগুলো খান।

মিষ্টি এবং মিষ্টি পানীয় একদম বন্ধ করে দিন। মিষ্টি শরীরের জন্য বেশ ক্ষতিকারক। মিষ্টিতে বিপুল পরিমাণ ক্যালরি থাকে। একটা রসোগোল্লা ১২০ ক্যালরি থাকে। বিস্কুট বা কুকি খাওয়া বন্ধ করে দিন। একটা বিস্কুটে সাধারণ ভাবে ২০০ ক্যালরি থাকে। তাহলে মিষ্টি চায়ের সঙ্গে দুটো বিস্কুট খেলেই ৬০০ ক্যালরি ঢুকে গেল। একটা ২০০ মিলি ঠান্ডা পানীয়ে ২১০ ক্যালরি থাকে। চিনি প্রচুর পরিমাণে ক্যালরি দিতে পারে এ ছাড়া এর কোন পুষ্টি গুণ নেই।

বেশি বেশি শাক-সব্জি খান। সব্জিতে অনেক ফাইবার থাকে তাই তা কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করে। তা ছাড়া সব্জিতে খুব কম ক্যালরি থাকে কিন্তু সহজে পেট ভরে যায়। পুষ্টি গুণেও এটি সমৃদ্ধ।

ফ্যাট বন্ধ করবেন না, স্বাস্থ্যকর ফ্যাট খাবেন কম পরিমাণে। ভাল ফ্যাট খাবেন যেমন বাদাম, আখরোট, কাজু এবং চিজ। এতে প্রচুর পরিমাণে ফ্যাট এবং প্রোটিন পাওয়া যায়। তবে খুব বেশি নয়।

এ ছাড়াও নিচের টিপ্সগুলো মেনে চলুন :

#দিনে তিন বার খাওয়ার বদলে অল্প অল্প করে ৫ থেকে ৬ বার খান|

#যা খেতে ইচ্ছা করছে তার থেকে ২-৩ গ্রাস কম খাবার খান|

#লাঞ্চের আগে অল্প চিনি ছাড়া ফ্রুট জুস বা ভেজিটেবল স্মুদি খেতে পারেন|

#স্যুপ খাওয়ার সময় তাতে মাখন মেশাবেন না|

#ডিনারে হাল্কা খাবার খান|

#ডিনার সন্ধ্যা ৭ থেকে ৮টার মধ্যে করার চেষ্টা করুন|

#ডিনার করার পর অন্তত তিন ঘন্টা জেগে থাকার চেষ্টা করবেন|

#টিভি দেখতে দেখতে খাবার খাবেন না|

#ধীরে ধীরে চিবিয়ে খাবার খান|

#খাবার পর বসে বা শুয়ে না থেকে হাঁটাহাঁটি করুন

#বাইরের খাবার খাওয়া কমিয়ে দিন|

#প্রতি দিন অন্তত ৭-৮ ঘন্টা ঘুমোনোর চেষ্টা করুন

তবে সুস্থ ভাবে ওজন কমাতে এর সঙ্গে ব্যায়াম করতে হবে। প্রতি দিন অন্তত ২ ঘন্টা ব্যায়াম করার চেষ্টা করুন| তা যদি সম্ভব না হয় তা হেল দিনে অন্তত ১০,০০০ স্টেপস হাঁটার চেষ্টা করুন| একই সঙ্গে লিফ্টের বদলে পায়ে হেঁটে সিঁড়ি ওঠানামা করুন|অফিস থেকে ফেরার সময় দু’ স্টপ আগে নেমে পড়ুন| ওইটুকু পথ হেঁটে বাড়ি ফিরুন।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp

Leave a Reply

Your email address will not be published.